1. [email protected] : abulkasem745 :
  2. [email protected] : Amranahmod Amranahmod : Amranahmod Amranahmod
  3. [email protected] : Arafathussain736 :
  4. [email protected] : didarkulaura :
  5. [email protected] : Press loskor : Press loskor
  6. [email protected] : HolyBd24.com :
  7. [email protected] : M Sohel Rana : M Sohel Rana
  8. [email protected] : syed sumon : syed sumon
শুক্রবার, ১৪ মে ২০২১, ০৫:৫২ অপরাহ্ন

পাকিস্তানের সাবমেরিন বহর নৌবাহিনী সিল’র স্বপ্ন

প্রতিবেদকের নাম
  • আপডেটের সময় : বৃহস্পতিবার, ২৩ এপ্রিল, ২০২০
  • ২১ বার ভিউ

পাকিস্তানের সাবমেরিন বহর যদিও ক্ষুদ্র ও অ-পারমানবিক, তবে দেশের উপকূলীয় জলসীমার সুরক্ষায় সেগুলো নতুন মাত্রা যোগ করেছে এবং পাকিস্তান নৌবাহিনীর স্পেশাল সার্ভিস টিমের জন্য এগুলো নতুন শক্তি হিসেবে কাজ করছে।

আগোস্তা ও আগোস্তা ৯০বি-শ্রেণী

পাকিস্তানের পাঁচটি ফরাসি ডিজাইনের আগোস্তা শ্রেণীর সাবমেরিন রয়েছে। এই সাবমেরিনগুলো প্রথম তৈরি করা হয়েছিল দক্ষিণ আফ্রিকার নৌবাহিনীর জন্য, কিন্তু জাতিসংঘের অস্ত্র নিষেধাজ্ঞার কারণে সত্তরের দশকের শেষের দিকে এবং আশির দশকের শুরুর দিকে এগুলো পাকিস্তানের কাছে বিক্রি করা হয়। আগোস্তা-শ্রেণীর সাবমেরিনগুলো তুলনামূলকভাবে ছোট ডিজেল-বিদ্যুৎ চালিত সাবমেরিন। ৫৪ জন নাবিক এবং ৫ জন কর্মকর্তা এটিতে কাজ করতে পারে।

নব্বইয়ের দশকের শেষ দিকে এবং বিংশ শতকের শুরুর দিকে ফরাসীরা পাকিস্তান নৌবাহিনীর সাথে আলোচনার মাধ্যমে আগোস্তা-শ্রেণীর ডিজাইনে উৎকর্ষ এনে ‘উন্নত’ আগোস্তা-শ্রেণীর সাবমেরিন তৈরি করেন, যেটা আগোস্তা ৯০বি-শ্রেণী হিসেবে পরিচিত। সাবমেরিনের মধ্যে স্বয়ংক্রিয় যন্ত্রপাতি বাড়িয়ে ক্রুর সংখ্যা ৩৬ জনে নামিয়ে আনা হয়।

স্ট্যাণ্ডার্ড ডিজেল-বিদ্যুৎ সাবমেরিনগুলো পেরিস্কোপ ধরণের যন্ত্র ব্যবহার করে। নতুন ডিজাইনের আগোস্তা ৯০বি-শ্রেণীর ধরণের সাবমেরিনগুলোতে এয়ার-ইন্ডিপেন্ডেন্ট প্রপালশাস সিস্টেম রয়েছে, যেটা বাইরে থেকে বাতাসের সাহায্য ছাড়াই শক্তি উৎপাদন করতে পারে।

দুই ধরণের সাবমেরিনেই চারটি স্ট্যান্ডার্ড ৫৩৩ মিলিমিটার টর্পেডো টিউব রয়েছে, যেগুলোর সাবমেরিন বিধ্বংসী ও সার্ফেস নৌযান বিরোধী যুদ্ধের সক্ষমতা রয়েছে। সেই সাথে আগোস্তা এবং আগোস্তা ৯০বি-শ্রেণীর উভয় সাবমেরিনই টর্পেডো টিউবের মাধ্যমে ফরাসী এক্সোসেট জাহাজ বিধ্বংসী মিসাইল নিক্ষেপ করতে পারে।

এগুলোর সাথে পাকিস্তানের আরও কিছু সাবমেরিন রয়েছে, যেগুলো আকারে কিছুটা ছোট।

কসমস-শ্রেণী

পাকিস্তানের একইসাথে ইটালির ডিজাইন করা কসমস শ্রেণীর ছোট সাবমেরিনের একটি ছোট বহর রয়েছে। কসমস সাবমেরিনগুলো ডিজেল-বিদ্যুৎ চালিত এবং এগুলো মূলত পাকিস্তানের স্পেশাল সার্ভিস গ্রুপের জন্য পরিবহন যান হিসেবে কাজ করে। এই স্পেশাল সার্ভিস গ্রুপ নেভি সিলের সমান মর্যাদার একটি গ্রুপ।

যদিও কসমস শ্রেণীর সাবমেরিনগুলো সার্ফেস নৌযানে হামলার জন্য তৈরি করা হয়নি, তবে এগুলো দুটো স্পেশাল সার্ভিস টিমকে বহনের পাশাপাশি স্ট্যাণ্ডার্ড ৫৩৩ মিলিমিটার টর্পেডো নিক্ষেপ করতে পারে।

রহস্য সাবমেরিন

পাকিস্তানের নতুন সাবমেরিন আকারে বেশ ছোট, এবং সম্ভবত স্পেশাল সার্ভিস গ্রুপের জন্য এটা তৈরি করা হয়েছে, যেটা কসমস শ্রেণীর ভূমিকা রাখবে।

এই সাবমেরিনকে আগে এক্স-শ্রেণীর সাবমেরিন বলা হতো। এটা প্রায় ৫৫ ফুট লম্বা এবং সাত থেকে আট ফুট চওড়া। যদিও বলা হয়ে থাকে যে, এটা সাধারণত ডক ছেড়ে কোথাও যায় না, তবে স্যাটেলাইট ইমেজে দেখা গেছে যে, এগুলোর মেরামত, রক্ষণাবেক্ষণ ও নির্মাণের কাজ চলছে।

ছোট কিন্তু শক্তিশালী

পাকিস্তানের নৌবাহিনী যদিও তেমন বড় নয়, কিন্তু সেটা কোন বিষয় নয়। পাকিস্তানকে যে উপকূল রক্ষা করতে হয়, সেটা তত বিশাল নয়। তাদের সবশেষ ‘এক্স-শ্রেণীর’ সাবমেরিন যদি বাস্তবায়িত হয়, তাহলে স্পেশাল সার্ভিস টিমস সম্ভবত খুশি হবে।

নিউজ টি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর

উপদেষ্টা মন্ডলী

কাউন্সিলর এডভোকেট ছালেহ আহমদ সেলিম,
এডভোকেট গিয়াস উদ্দিন আহমদ,
প্রভাষক ডাঃ আক্তার হোসেন,
প্রকাশনা ও সম্পাদক রেজওয়ান আহমদ,
প্রধান সম্পাদক কবি এম এইচ ইসলাম,
বার্তা সম্পাদক এমরান আহমদ,
ব্যবস্হাপনা সম্পাদক আব্দুল আলী দেওয়ান আব্দুল্লাহ,
সহ ব্যবস্হাপনা সম্পাদক আমির হোসেন,
সাহিত্য সম্পাদক কবি সোহেল রানা,
বিভাগীয় সম্পাদক আমিনুর ইসলাম দিদার

© All rights reserved © 2020 Holybd24.com
Design & Developed BY Serverneed.com