এই মাত্র পাওয়া খবর
|
সর্বশেষ
ফেঞ্চুগঞ্জে কয়েস নয়, নৌকার পক্ষে প্রচারণা, এ নিয়ে এলাকায় তোলপাড়         ছকাপন যুব সমাজের উদ্দ্যোগে বিজয় দিবস উদযাপন         সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জে রুমন ও সোহেল স্মৃতি স্পোর্টিং ক্লাব এর ফাইনাল খেলা অনুষ্টিত।         বিজয় দিবসে বঙ্গবন্ধু লেখক সাংবাদিক ফোরাম সিলেট জেলা শাখার শ্রদ্ধাঞ্জলি         জামেয়া মোহাম্মদীয়া চিলারকান্দি মাদরাসায় বিজয় দিবস উদযাপন         দারুল উলূম সিলেট মাদ্রাসায় মহান বিজয় দিবস পালন         সিলেট ৩ আসনের ধানের শীষের প্রার্থী শফি চৌধুরীর গণসংযোগ।         নারীদের অবদানে রাজশাহী আরও এগিয়ে যাবে : মেয়র লিটন         ২৪ থেকে ২৬ ডিসেম্বরের মধ্যে সশস্ত্র বাহিনী মোতায়েন         বাংলাদেশ জিজ্ঞাসা || কে পাচ্ছেন কোটি টাকা?         ড. কামালের ওপর হামলা ফৌজদারি অপরাধ, গ্রেফতারের ক্ষমতা আছে সেনাবাহিনীর-কে এম নূরুল হুদা         ভোট চাইলেন চরমোনাই পীর         আ.লীগের ইশতেহার ঘোষণা ১৮ তারিখ         ওয়ানডেতে সাফল্য : বিশ্বে তৃতীয় বাংলাদেশ         ব্যারিস্টার মাহাবুব উদ্দিন খোকন গুলিবিদ্ধ, থমথমে নোয়াখালী        

সম্পাদকীয় কলাম

একটু থামুন দেশের ক্রিকেটের উন্নয়নের জন্য

হাফিজুল ইসলাম লস্কর :: মাহমুদুল্লাহ, ইমরুল ও মুশফিকের কাধেঁ ভর করে আফগান জুজু কাটিয়ে উঠলো বাংলাদেশ। এবং মুস্তাফিজ ও মাশরাফির বোলিং নৈপুণ্যে ৩ রানে জিতলো বাংলাদেশ। আবারো প্রতিভা নয় অভিজ্ঞতার হলো জয়। . পরিশেষে নির্বাচকদের উদ্দ্যেশ্যে বলতে চাই, গুরুত্বপুর্ন সিরিজে বিশেষ করে এশিয়া কাপের মতো টুনামেন্টে নবীনদেরকে ঠেলে দিয়ে তাদের উজ্জল ভবিষ্যত নিয়ে চিনিমিনি খেলবেন না। সেই সাথে একই সাথে তিন/চার নবীন খেলোয়ারকে অভিষেক করিয়ে দেওয়ার তামাশা বন্ধ করুন। দলের প্রয়োজনে একজন খোলোয়ারকে অভিষেক করানো যেতে পারে। তাই বলে তিন বা চাঁর জনকে একসাথে নয়। অভিজ্ঞদের উপর থেকে হুট করে আস্তা হারিয়ে ফেলবেন না। তাতে তাদের নয় আপনাদেরই দক্ষতা নিয়ে ...

বিস্তারিত »

পাহাড়ে দুই মাসে ১৭ খুন : অপহরণ-৩০

নির্মল বড়ুয়া মিলন :: পাহাড়ে আঞ্চলিক সংগঠনের মধ্যে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে পার্বত্য চুক্তি পক্ষের পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি (পিসিজেএসএস -সন্তু লারমা) পার্বত্য চুক্তি বিরোধী আঞ্চলিক সংগঠন ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট ( ইউপিডিএফ-প্রসিত ), ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ- গণতান্ত্রিক) ও সংস্কারপন্থী নামে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি ( পিসিজেএসএস – এমএন লারমা ) গ্রুপের চতুরমুখী দ্বন্দ্ব ও কোন্দল তীব্র হয়ে উঠেছে । এই চারটি আঞ্চলিক সংগঠনের দ্বন্দ্বে ২০১৮ সালের গত এপ্রিল ও মে মাসে খাগড়াছড়ি এবং রাঙামাটি জেলার বিভিন্ন স্থানে ১৭ জন খুন হয়েছে। এছাড়াও ৩০ জনকে অপহরণের অভিযোগ রয়েছে। তারপরও সরকার,গোয়েন্দা সংস্থা সমুহ এবং আইন শৃংখলা বাহিনীর ভূমিকা রহস্যজনক। ...

বিস্তারিত »

উপ সম্পাদকীয় » বিজুফুল নামকরণের গুরুত্ব ও সার্থকতার বিশ্লেষণ

নজরুল ইসলাম তোফা :: পৃথিবীতে অনেক কিছুর মধ্যে সৌন্দর্য্যের অন্যতম হচ্ছে সুন্দর ফুল। ফুলের মধ্যে রয়েছে পাপড়ির বিন্যাস, রঙের বৈচিত্র্য এবং গন্ধের মাধুর্য যা মানুষের মনকে ভরে তোলে স্বর্গীয় আনন্দে। ফুলকে ভালোবাসে না এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া দুষ্কর। প্রকৃতি প্রেমী মানুষরাই যুগে পর যুগ ধরে ফুলকে বিভিন্ন ভাবে ভালোবেসে আসছে। ফুল সৌন্দর্যের প্রতীক, ভালোবাসার প্রতীক, পবিত্রতার প্রতীক কিংবা নিষ্পাপতার প্রতীক। শিশুদের ভালো মানুষ নিষ্পাপ-নিষ্কলঙ্ক হতেই অনেকেই উদ্বুদ্ধ করে, ‘ফুলের মতো পবিত্র হও’। শিশুরা নিষ্পাপ ও পবিত্র বলে ফুলের সঙ্গেই তুলনা করেন কালজয়ী মানুষ। আবার সেই মানুষরা রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটেও বলে থাকেন ‘’ফুলের মতো পবিত্র” নেতা চাই। আসলেই চাওয়া পাওয়ার মাঝেই বলা ...

বিস্তারিত »

স্বাধীনতা সংগ্রামে আলেম উলামাদের অবদান

‘আলেম উলামা ও টুপি-দাঁড়ি’ মানেই স্বাধীনতা বিরোধী এমন নয়! আমাদের দেশে শান্তিপূর্ণ ও অধ্যাত্মশক্তিতে ইসলামের সার্বজনীন বিস্তরণে আলেম সমাজের ভূমিকা অবিস্মরনীয়। অথচ অজ্ঞতা বশতঃ অনেকে ধর্মপ্রাণ-নিরীহ মানুষকে স্বাধীনতা বিরোধী হিসেবে চিত্রিত করেন, তাদেরকে নাটক-সিনেমার ‘খল চরিত্র’ হিসেবে পোষাকী ব্যবহার গ্লানিকর ও দুঃখজনক। ‘রক্তসাগর’ পাড়ে মৃত্যুহীন ত্রিশ লাখ ‘বণি আদমের’ হাসির ঝিলিক ১৯৭১ এবং সোনালি আভায় উজ্জ্বল আমাদের লাল-সবুজের বিজয় নিশান। আমাদের স্বাধীনতা সংগ্রাম ছিল জালিমের বিরুদ্ধে, মজলুমের ২৬৩ দিনের এক সহসী প্রতিরোধ। তিতুমীর, হাজী শরিয়তুল্লাহ্, দুদু মিয়া, ফকির মজনুশাহর সংগ্রামী আদর্শে উজ্জ্বীবিত আমাদের আলেম সমাজ স্বাধীনতা সংগ্রামে দৃঢ় অবস্থান নিয়ে ছিলেন এবং নিজ যোগ্যতার কারণে নেতৃত্বও গ্রহণ করেছিলেন। নন্দিত কথা ...

বিস্তারিত »

উপ সম্পাদকীয় ।। পার্বত্য অঞ্চলের ভুমি সমস্যা সমধানের জন্য কয়েকটি প্রস্থাব

সাংবাদিক নির্মল বড়ুয়া মিলন :: সাবেক পার্বত্য চট্টগ্রাম জেলা, বর্তমান রাঙামাটি, বান্দরবান ও খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা৷ পার্বত্য তিন জেলার মুল সমস্যা ভুমির মালিকানা নিয়ে জটিলতা, যা পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়নে মুল বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছে৷ একথা বেশ কয়েকবার ক্ষমতাসীন দল ও তার বন্ধু সংগঠন পিসিজেএসএস নেতা গণমাধ্যমে প্রকাশ্যে স্বাীকার করেছেন৷ রাজনৈতিক কারণে এবং রাজনৈতিক ক্ষমতা হারানো ভয়ে পাহাড়ি নেতারা মুখে বলেন পার্বত্য ভুমি সমস্যার কথা, কিন্তু কেউ মুল কাজে হাত দেননা৷ পাহাড়ি নেতারা ভুমি সমস্যা নিয়ে কাজ করতে রাজি নয় তা ২০ বছরে পরিস্কার হয়ে গেছে৷ পার্বত্য চুক্তি করা হয়েছে বিগত ২০ বছর, যে কারণ দেখিয়ে পার্বত্য চুক্তি করা হয়েছিল তার মুল ...

বিস্তারিত »

মহিমান্নিত ‘ভাষার মাস’ ফেব্রুয়ারী শুরু…

‘আমার ভাই এর রক্তে রাঙানো একুশে ফেব্রুয়ারি, আমি কি ভুলিতে পারি’। বছর ঘুরে আবার এলো মহিমান্নিত ফেব্রুয়ারি মাস। ১৯৫২ সালের এই মাসে বাঙালি ছেলেরা বুকের রক্ত ঢেলে মাতৃভাষার অধিকারকে সর্বজনীন মৌলিক অধিকার হিসেবে প্রতিষ্ঠা করেন। পুরো মাসজুড়ে ভাষার জন্য যাঁরা বুকের রক্ত দিয়েছিলেন তাঁদের ভালোবাসা জানাবে বাঙালি জাতি। ওই আত্মবলিদানে গণতান্ত্রিক ও ন্যায়ভিত্তিক আধুনিক রাষ্ট্রব্যবস্থার স্বপ্নও ছিল, যা এই জাতিকে পরবর্তী ধাপে পথ দেখিয়েছে। ১৯৫২ সালের একুশে ফেব্রুয়ারী রাষ্ট্রভাষা বাংলার দাবিতে দুর্বার আন্দোলনে নামেন সালাম, জব্বার, শফিক, বরকত ও রফিকসহ আরও অনেকে। তাদের রক্তের বিনিময়ে বাঙালি জাতি পায় মাতৃভাষার মর্যাদা।। পরে এই অর্জনের পথ ধরেই শুরু হয় বাঙালির স্বাধীকার আন্দোলন ...

বিস্তারিত »

“ভলো বাসা চাই”

শহরে জীবন অত্যন্ত কষ্ট,বিশেষ করে ব্যাচেলরদের জন্য।আমি ব্যাচেলরদের একজন।ভলো পড়াশুনা আর টুকিটাকি কাজ করে কিছু টাকা সংগ্রহ করাই আমার লক্ষ্য।যার জন্য গ্রামের বাড়ির আয়েশের ঘর দোর বিছানা আর মায়ের হাতের রান্না  খাওয়া ছেড়ে এই শহরে আসা। কিন্তুু আমার দুঃখ ৬বৎসরেও এখনও কোথাও স্যাটেল হতে পারলাম না।ব্যাচেলরদের কেউ বাসা ভাড়া দিতে চায় না,তাই খুজতে থাকি হোস্টেল,পেয়েও যাই কয়েকটা কিন্তুু হোস্টেল উঠতেই শুনিয়ে দেয় এক গাদা নিয়মাবলী, ১,রাত নয়টার মধ্যে হোস্টেলে চলে আসা ২,টেলিভিশন দেখা যাবে না, ৩,নিজ দায়িত্ব খাওয়া(সকল ছাড়া) ৪,মেহমান নিয়ে আসা যাবে না, কে মানতে চায় এতো  নিয়ম,তাই ছেড়ে দিলাম এগুলো,খুজতে থাকি নিয়ম ছাড়া হোস্টেল,যেখানে স্বাধীনতা কোনো হস্তক্ষেপ করবে না।দেখলাম ...

বিস্তারিত »