Main Menu

সমাপনী বাদে সব পরীক্ষা হবে শিক্ষকদের প্রশ্নে

শিক্ষাঙ্গন : সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সব শ্রেণিতে প্রথম সাময়িক, দ্বিতীয় সাময়িক ও বার্ষিক পরীক্ষা নিজস্ব শিক্ষকদের প্রশ্নপত্রেই নিতে হবে। অর্থাৎ স্ব স্ব বিদ্যালয়ের শিক্ষকদেরই তাদের নিজেদের স্কুলের প্রশ্ন করতে হবে। বুধবার প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে এ সংক্রান্ত পরিপত্র জারি করা হয়।

পরিপত্রে বলা হয়, শুধু পঞ্চম শ্রেণির সমাপনী পরীক্ষার প্রশ্ন ব্যতীত সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম ও দ্বিতীয় সাময়িক এবং বার্ষিক পরীক্ষার প্রশ্নপত্র নিজস্ব প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকদের করতে হবে। এর আগে প্রাথমিক পরীক্ষার প্রশ্নপত্র উপজেলা ও থানা পরীক্ষা পরিচালনা কমিটি থেকে প্রণয়ন করা হতো।

পরিপত্রে বলা হয়, ছাত্রছাত্রীদের মধ্যে সৃজনশীলতা তৈরির জন্য সর্বপ্রথম শিক্ষকদের মধ্যে সৃজনশীলতা সৃষ্টি করা প্রয়োজন। এ কারণেই প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পরীক্ষার প্রশ্নপত্র স্ব স্ব বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের প্রণয়ন করা জরুরি। তাই এখন থেকে উপজেলা ও থানা পরীক্ষা পরিচালনা কমিটি থেকে প্রশ্ন প্রণয়নের পরিবর্তে নিজ বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের প্রশ্ন প্রণয়ন করতে হবে। কোনো অবস্থাতে সমিতি বা অন্য কোনো উৎস থেকে প্রশ্নপত্র সংগ্রহ করা যাবে না।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিব মো. আকরাম আল হোসেন বলেন, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম, দ্বিতীয় সাময়িক ও বার্ষিক পরীক্ষার সব প্রশ্ন স্ব স্ব প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকদের করতে হবে। বর্তমানে এটি উপজেলা বা থানা পরীক্ষা পরিচালনা ও সমন্বয় কমিটি প্রণয়ন করে থাকে।

আকরাম-আল-হোসেন বলেন, শিক্ষকদের প্রশ্ন করার দক্ষতা না থাকলেও বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের দক্ষতা যাচাই করা সম্ভব হবে না। শিক্ষার্থীদের মধ্যে সৃজনশীলতা আনতে সর্বপ্রথম শিক্ষকদের মধ্যে সৃজনশীলতা তৈরি করতে হবে। এতে করে শিক্ষার্থীদের মধ্যে উৎসাহ সৃষ্টি হবে।

উল্লেখ্য, দীর্ঘদিন ধরে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পরীক্ষার প্রশ্ন প্রণয়নের দায়িত্ব উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসের থাকলেও গত এপ্রিলে এ ভার স্ব-স্ব বিদ্যালয়কে দিয়ে আদেশ জারি করে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের বিভাগীয় কার্যালয়গুলো। কিন্তু জুলাইয়ের শুরুতেই সে আদেশ স্থগিত করা হয়। তাই, প্রশ্ন তৈরির দায়িত্ব কে পালন করবেন তা নিয়ে বিভ্রান্ত ছিলেন প্রাথমিকের শিক্ষকরা।






Related News

Comments are Closed