এই মাত্র পাওয়া খবর
|
সর্বশেষ
জাতিসংঘের কাছে ৯২০মিলিয়ন ডলার আর্থিক সহায়তা চায় বাংলাদেশ         দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে নতুন প্রজন্মকে এগিয়ে আসতে হবে         রাতভর বোমাতঙ্ক সকালে মিললো বেগুন আতঙ্কে ক্যাম্পাস         আজ ইজতেমার মাঠে সর্বকালের স্বরনীয় জুম্মার জামাতে লক্ষ লক্ষ মুসল্লী ।।         ভাষা আন্দোলনেও বঙ্গবন্ধুর অবদানকে মুছে ফেলা হয়েছিল         দুইমাসের মধ্যে পাঁচ হাজার ডাক্তার নিয়োগ: স্বাস্থ্যমন্ত্রী         জামায়াত থেকে ব্যারিস্টার রাজ্জাকের পদত্যাগ         ঠাকুরগাঁও বিজিবি এলাকাবাসী সাথে সংঘর্ষে নিহত ৪জন         The Insider Secrets for Hello World         বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে অভিন্ন পদ্ধতিতে শিক্ষক ও কর্মচারী নিয়োগ দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।         দুর্নীতিবাজ দুদকের দুর্নীতিবাজ আইনজীবী মোশারফ হোসেন কাজল         দেশের অর্থনৈতিক অবস্থা ভালো থাকলে বিনা খরচে হজ্বে সুযোগ দিতাম।।ইমরান খান। ।         রাজধানী সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে আগুন         বিশ্বনাথে নুনু মিয়ার সমর্থনে অলংকারী ইউনিয়ন আ’লীগের যৌথ কর্মীসভা         তিন বাংলাদেশি বিপিএল তারকার বোলিং অবৈধ। ।বিসিবি।।।।        

রক্ষক যখন ভক্ষক ইয়াবা সেবন করিয়ে পুলিশ কতৃক নারী ধর্ষন।

প্রকাশিত হয়েছে : ৬:৫৯:০৩,অপরাহ্ন ১১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ | সংবাদটি ১৩ বার পঠিত

হলিবিডি ডেস্কঃ ১১ ফেব্রুয়ারি,২০১৯ দুই পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে পিস্তল ঠেকিয়ে এক নারীকে (২০) ইয়াবাসেবন করিয়ে পালাক্রমে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে।

রোববার দুপুরে মানিকগঞ্জ পুলিশ সুপারের কাছে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানিয়ে লিখিত অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী নারী।পরে অভিযুক্তদের ক্লোজড করা হয়েছে। তারা হলেন, সাটুরিয়া থানার এসআই সেকেন্দার আলী ও এএসআই মাজহারুল ইসলাম।

ওই নারী সাংবাদিকদের জানান, ঢাকার আশুলিয়া থানার কাইছাবাড়ি এলাকায় ভাড়া থাকেন তিনি। বাড়ির মালিকের স্ত্রীর সঙ্গে এসআই সেকেন্দার আলীর জমি কেনা নিয়ে আর্থিক লেনদেন রয়েছে। এই টাকা আনতে তাকে নিয়ে গত বৃহস্পতিবার বিকেলে সেকেন্দারের কাছে যান মালিকের স্ত্রী।সেকেন্দার সেখান থেকে তাদের বাংলোতে নিয়ে দু’দিন আটকে রাখেন। এ সময়ে গুলি করার ভয় দেখিয়ে ইয়াবাসেবনে বাধ্য করে একাধিকবার তিনি এবং এএসআই মাজহারুল ইসলাম তাকে ধর্ষণ করেন।ছাড়া পেয়ে পরে ওই নারী পুলিশ সুপারের কাছে লিখিত অভিযোগ করেছেন বলেও জানান।

এ বিষয়ে মানিকগঞ্জ পুলিশ সুপার রিফাত রহমান শামীম সাংবাদিকদের জানান, অভিযোগ পেয়ে তাৎক্ষণিকভাবে সেকেন্দার ও মাজহারুলকে ক্লোজড করা হয়েছে। তদন্তে প্রমাণ পেলে তাদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

About rezwan rezwan

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com