মালয়েশিয়ায় অবৈধ ১৯ হাজার অভিবাসী আটক

প্রকাশিত হয়েছে : ৭:৪২:০৩,অপরাহ্ন ১১ মে ২০১৯ | সংবাদটি ২১ বার পঠিত

হলিবিডি ডেস্কঃ : মালয়েশিয়ায় অবৈধ অভিবাসীদের বিরুদ্ধে চলমান অভিযানে গত ৪ মাসে ১৮ হাজার ৯৮৯ জন বিদেশিকে আটক করা হয়েছে। এই অভিযানে মোট ৮১ হাজার ৮৪৪ জন বিদেশির কাগজপত্র যাচাই করা হয়েছে।

দেশটির অভিবাসন বিভাগের মহাপরিচালক দাতুক খায়রুল দিজাইমি দাউদ গণমাধ্যমকে বলেন, ‘একই সময়ে ৪২৯ জন নিয়োগকর্তাকেও আটক করা হয়েছে।’

সম্প্রতি এক বিবৃতিতে ইমিগ্রেশন মহাপরিচালক সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, ‘আটককৃতদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি ইন্দোনেশিয়ান ও বাংলাদেশি। গত চার মাসে পরিচালিত অভিযানে ছয় হাজার ৪৮৪ জন ইন্দোনেশিয়ান, চার হাজার ২৯১ জন বাংলাদেশিকে আটক করা হয়েছে। এরপর এক হাজার ৮২৮ জন মিয়ানমারের নাগরিক, এক হাজার ৭২০ জন ফিলিপিনো ও বিভিন্ন দেশের চার হাজার ৪৯২ জন অভিবাসীকে আটক করা হয়েছে।

মালয়েশিয়ার সংশ্লিষ্ট বিভাগ সম্প্রতি সংবাদমাধ্যমে বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, বৈধ কাগজপত্র ছাড়া কোনো শ্রমিককে তারা দেশটিতে কর্মরত চান না। আর তাই তারা এই অভিযান অব্যাহত রেখেছে।

শ্রমিকদের জিজ্ঞাসাবাদ করে কাগজপত্র থাকলে ছেড়ে দেয়া হচ্ছে। অন্যথায় জেল-জরিমানা করা হচ্ছে বলে জানান সারডাং পুলিশের সহকারী কমিশনার ইসমাইল বোরহান।

দেশটির অভিবাসন বিভাগের ঘোষণা অনুযায়ী- মালয়েশিয়ায় অবৈধ বিদেশিকে কোনোভাবেই অবস্থান করতে দেয়া হবে না।

এ বিষয়ে মালয়েশিয়ার সংশ্লিষ্টরা বলছেন, ‘দেশটির সার্বভৌমত্ব বজায় রাখতে এবং আইন-শৃঙ্খলা বজায় রাখতে তারা চলমান অভিযান অব্যাহত রেখেছে।’

এ দিকে মালয়েশিয়ায় সাঁড়াশি অভিযানে গ্রেফতার হচ্ছেন বৈধ বাংলাদেশিরাও। নামবিহীন দালালের মাধ্যমে বৈধ হয়ে অন্যত্র কাজের মধ্যেই গ্রেফতার হয়ে জেলে যেতে হচ্ছে বাংলাদেশিদের।

দেশটির আইন অনুযায়ী যে মালিকের নামে ভিসা করা হয়েছে, সেই মালিকের কাজ করতে হবে, অন্যথায় তাদেরকে অবৈধ হিসেবে গণ্য করা হবে। আর অন্য জায়গায় কাজ করা অবস্থায় ধরা পড়লে যেতে হবে জেলে।

About rezwan rezwan

https://gnogle.ru/project/edit/102
WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com