Main Menu

নৌ ধর্মঘট প্রত্যাহার

হলিবিডি প্রতিনিধিঃ বেতন বৃদ্ধি, খোরাকি ভাতা, চাকরী স্থায়ীকরণসহ ১১ দফা দাবিতে শুক্রবার (২৯ নভেম্বর) রাত থেকে লাগাতার ধর্মঘট পালন করছিল বাংলাদেশ নৌযান শ্রমিক ফেডারেশনের নেতারা। তবে খোরাকি ভাতার আশ্বাসে শনিবার মধ্যরাত থেকে ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নিয়েছে আন্দলনকারীরা। খোরাকি ভাতা আগামী বছরের মার্চ মাস থেকে দেয়া হবে এমন আশ্বাস দেয়া হয়। শ্রম অধিদপ্তরের ডিজির সাথে দীর্ঘ বৈঠকে এই সিন্ধান্ত নেয়া হয়।

এর আগে, শুক্রবার মধ্যরাত থেকে সারা দেশে লঞ্চ ও পণ্যবাহী জাহাজ চলাচল প্রায় বন্ধ হয়ে যায়। এতে শনিবার দিনভর ভোগান্তিতে পড়েন যাত্রী ও ব্যবসায়ীরা। বিশেষত বরিশাল ও খুলনা বিভাগের মানুষ বেশি দুর্ভোগে পড়েন। চট্টগ্রাম বন্দরের বহির্নোঙর ও ১৬টি ঘাটে পণ্য খালাস বন্ধ ছিল। দেশি-বিদেশি জাহাজগুলোয় ৩০ লাখ টনের বেশি পণ্য আটকা পড়ে।

এছাড়া মোংলা বন্দর, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ, খুলনা ও যশোরের অভয়নগরসহ বেশিরভাগ বন্দরে জাহাজ থেকে পণ্য লোড-আনলোড কার্যক্রম কার্যত বন্ধ ছিল। তবে ঢাকা নদীবন্দর (সদরঘাট) থেকে হাতেগোনা কয়েকটি লঞ্চ ছেড়ে গেছে। এদিকে এ ধর্মঘটকে অবৈধ আখ্যায়িত করে ধর্মঘট প্রত্যাহরসহ ৬ দফা দাবি জানিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছে পণ্যবাহী জাহাজ মালিকদের সংগঠন বাংলাদেশ কার্গো ভেসেল ওনার্স অ্যাসোসিয়েশন।






Related News

Comments are Closed