Main Menu

দুর্গাপূজা উপলক্ষে আইনশৃঙ্খলা ও নিরাপত্তা বিষয়ক মতবিনিময় সভা

সিলেট প্রতিনিধিঃ : বৃহস্পতিবার (১৯ সেপ্টেম্বর) সকাল ১১টায় সিলেট জেলা পুলিশের উদ্যোগে পুলিশ লাইন্স এর বীর মুক্তিযোদ্ধা শহীদ এসপি এম শামসুল হক মিলনায়তনে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের আসন্ন শারদীয় দুর্গাপূজা-২০১৯ উদযাপন উপলক্ষে আইনশৃঙ্খলা ও নিরাপত্তা বিষয়ক এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সিলেট জেলার পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ফরিদ উদ্দিন। জেলা বিশেষ শাখার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. আমিনুল ইসলামের সঞ্চালনায় সভায় স্বাগত বক্তব্য দেন সিলেট জেলা পূজা উদযাপন কমিটির সাধারণ সম্পাদক রঞ্জন ঘোষ।

সভায় উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (দক্ষিণ) ইমাম মোহাম্মদ শাদিদ, জকিগঞ্জ সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সুদীপ্ত রায়সহ সিলেট জেলার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও সকল থানার ওসিগণ, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন কেন্দ্রীয় কমিটির উপদেষ্টা ও সিলেট জেলা হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি বিরাজ মাধব চক্রবর্তী মানস, মহানগর পূজা উদযাপন কমিটির প্রধান উপদেষ্টা এ্যাডভোকেট প্রদীপ কুমার ভট্টাচার্য্য, সভাপতি সুব্রত কুমার দেব, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য অধ্যাপক রজত কান্তি ভট্টাচার্য্য প্রমুখ।

মতবিনিময় সভায় সিলেট জেলার পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ফরিদ উদ্দিন সনাতন ধর্মাবলম্বীদের আসন্ন শারদীয় দুর্গাপূজা-২০১৯ উদযাপন উপলক্ষে আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত বিষয়ে সকল থানা থেকে আগত পূজা উদযাপন কমিটির নেতৃবৃন্দ ও উপস্থিত সকলের মতামত গ্রহণ করেন।

সভায় পুলিশ সুপার জানান, সিলেটে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষা করে নিজ নিজ ধর্ম সুষ্ঠুভাবে পালনে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী সর্বদা সতর্ক রয়েছে। শান্তিপূর্ণভাবে পূজা উদযাপন উপলক্ষে আইনশৃঙ্খলা রক্ষা ও পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখার জন্য পোশাকধারী পুলিশের পাশাপাশি সাদা পোশাকে পুলিশের নজরদারি বৃদ্ধি করা হবে। এছাড়া সিলেট জেলাধীন সকল সার্কেল ও থানার ওসিদের পেশাদারিত্বের সাথে দায়িত্ব পালনসহ যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবেলায় সতর্ক থাকার নির্দেশ প্রদান করেন তিনি।

পুলিশ সুপার পূজা উদযাপন কমিটির নেতৃবৃন্দকে তাদের নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় বিভিন্ন কমিটির মাধ্যমে জরুরি মুহূর্তে জেনারেটর রাখা, স্বেচ্ছাসেবক বাহিনী গঠন, নারী-পুরুষ আলাদা লাইনে প্রবেশ ও বাহিরের ব্যবস্থা করা, ধর্মীয় সম্প্রীতি বজায় রাখতে আজান ও নামাজের সময় মাইক বন্ধ রাখা, সম্ভব হলে সিসিটিভি স্থাপন করা, প্রতিটি মন্ডপে আগুন নিয়ন্ত্রক সিলিন্ডার রাখাসহ বিভিন্ন দিক নিদের্শনা প্রদান করেন।

তিনি নিশ্চিত করেন, যেকোনো ধরণের দুর্ঘটনা বা অঘটনের সংবাদ প্রাপ্তির সাথে সাথে সিলেট জেলা পুলিশ তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।

উল্লেখ্য, এবারে সিলেট জেলার ১১টি থানার ৪৫৬টি পূজামন্ডপে শারদীয় দূর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হবে।






Related News

Comments are Closed