Main Menu

চুল পড়া কমায় লেবুর রস

লেবুর রয়েছে অনেক গুণ। ভিটামিন সি-এর উৎস এই ফলটি যেমন শরীর সুস্থ রাখে, তেমনি ত্বক ও চুলের যত্নেও এর ভূমিকা রয়েছে। হেয়ার প্যাক হিসেবে লেবুর রস নিয়মিত ব্যবহার করলে চুল পড়া বন্ধ হয়। পাশাপাশি খুশকি দূর করতেও এর জুড়ি নেই। জেনে নিন চুলের যত্নে লেবুর ব্যবহার।

 

 

 

 

 

মরা চামড়া দূর করতে

টুকরা করা লেবু মাথার ত্বকে ঘষুন। ৫ মিনিট পর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এটি মাথার তালুর মরা চামড়া দূর করবে। পাশাপাশি চুলে নিয়ে আসবে চমৎকার সুগন্ধ।
চুল ঝলমলে করতে
একটি পাত্রে ২ টেবিল চামচ নারকেল তেল নিন। একটি আস্ত লেবুর রস মিশিয়ে তেলটি ফ্রিজে রাখুন। ঠাণ্ডা মিশ্রণ চুলে লাগিয়ে মোটা দাঁতের চিরুনি দিয়ে আঁচড়ে নিন। ১৫ মিনিট পর ঠাণ্ডা পানিতে ধুয়ে ফেলুন চুল। নিয়মিত এভাবে ব্যবহার করলে চুল সিল্কি হবে।
খুশকি দূর করতে
একটি লেবুর রস নিংড়ে পানি মিশিয়ে নিন। মিশ্রণটি মাথার তালুতে ও চুলে লাগান। কিছুক্ষণ পর ধুয়ে ফেলুন। লেবুতে থাকা অ্যাসিডিক উপাদান প্রাকৃতিকভাবে দূর করবে খুশকি।
তৈলাক্ত চুলের যত্নে
অনেকের চুলের গোড়া থেকে অতিরিক্ত তেল নিঃসৃত হয়ে চুল তৈলাক্ত করে ফেলে। এই তেলতেলে ভাব দূর করতে সাহায্য করে লেবু।

চুলের বৃদ্ধি বাড়াতে

চুলের বৃদ্ধি দ্রুত করে লেবু। নারকেল তেল, জলপাই তেল ও লেবুর রস একসঙ্গে মিশিয়ে চুলে লাগান নিয়মিত। ঝলমলে ভাব বাড়ার পাশাপাশি তাড়াতাড়ি লম্বা হবে চুল।

আগা ফাটা রোধ করতে
লেবুর রস এবং জলপাই তেল একসঙ্গে মিশিয়ে চুলের আগায় লাগান। ২০ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন। ৩ সপ্তাহে একবার করে করলে আগা ফাটবে না।
চুল পড়া কমাতে
লেবুর রস, ভিনেগার ও লবণের মিশ্রণ লাগান চুলে। চুল পড়া কমে যাবে।
কন্ডিশনার হিসেবে
লেবুর রস ও নারকেলের পানি সমপরিমাণ মিশিয়ে ব্যবহার করতে পারেন কন্ডিশনার হিসেবে। প্রাকৃতিকভাবে চুল ঝলমলে করবে এ মিশ্রণ।






Related News

Comments are Closed