Main Menu

ক্ষমতা থাক বা না থাক ফেঞ্চুগঞ্জের মানুষের কল্যানে আমার সম্পৃক্ততা থাকবে,সাইফুল্লাহ 

এমরান আহমেদ :: অশ্রুসিক্ত নয়ন, সুরভিত ফুল আর সোনালী অক্ষর খচিত ক্রেস্ট দিয়ে বিদায় সংবর্ধনা দেয়া হয়েছে ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা পরিষদের নন্দিত চেয়ারম্যান সাইফুল্লাহ আল হোসাইনকে।

১০ বছর ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা পরিষদের সর্বোচ্ছ আসনে থেকে এই উপজেলার সার্বিক উন্নয়নে নিজেকে সম্পৃক্ত রাখার পাশাপাশি মানুষের মন জয়ে ঈষনীয় সাফল্যই যেন অর্জন করেছেন তিনি। বিদায়ী সংবর্ধনাকে ঘিরে সবস্থরের মানুষের ভালবাসামিশ্রিত তৎপরতা এমনটাই জানান দিয়েছে ।

২০১৯ খৃস্টাব্দের ১৭ই এপ্রিল বুধবার ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা প্রশাসন, সকল ইউপি চেয়ারম্যান এবং অফিসার ক্লাব, কমকতা-কমচারীর উদ্যোগে আয়োজিত সংবর্ধনায় সভাপতিত্ব করেন ফেঞ্চুগঞ্জের ইউএনও আয়েশা হক। উপজেলা যুব উন্নয়ন কমকতা সুব্রত করের প্রাঞ্জল উপস্থাপনায় বিদায়ী চেয়ারম্যান সাইফুল্লাহ আল হোসাইন আবেগময় বক্তব্যে বলেন, ২০০৯ সালের ২২ জানুয়ারি ফেঞ্চুগঞ্জবাসী আমাকে উপজেলা পরিষদে বসার ক্ষমতা প্রদান করেছিলেন। আমি ওই চেয়ারের যোগ্য ছিলাম না। তবে ক্ষমতা নামক উপজেলাবাসীর পবিত্র আমানতের ব্যাপারে আমি সর্বদা সতর্ক থেকে নিরলস কাজ করার চেস্টা করেছি। কতটুকু সফল আর কতটুকু ব্যর্থ হয়েছি সেই বিচারের ভার আপনাদের। তিনি বলেন, ১০ বছরের পথ পরিক্রমায় সব সাফল্যের ভুমিকা আপনাদের আর ব্যর্থতা একান্তই আমার। ক্ষমতা থাক বা না থাক ফেঞ্চুগঞ্জের মাটি ও মানুষের কল্যানে আমার সম্পৃক্ততা থাকবে। বিদায় সংবর্ধনা উপজেলা হল রোমে হলেও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকের সরাসরি সম্প্রচারের কল্যাণে সিলেট বিভাগসহ যুক্তরাস্ট্র, যুক্তরাজ্য ছাড়াও পৃথিবীর নানা প্রান্তে বসবাসকারী ফেঞ্চুগঞ্জের প্রবাসীরা যুক্ত হন অনুস্টানের সাথে। লাইক আর কমেন্টে ভরপুর হয়ে যায় মুখ বইয়ের আসমানী চত্তর। অনলাইনে তাদের মতামত ব্যক্ত করতে গিয়ে সাইফুল্লাহ আলহোসাইনের ভুয়ষী প্রশংসা করেন। প্রবাসীরা


অনুস্টানে বক্তব্য রাখেন বিদায়ী মহিলা ভাইস-চেয়ারম্যান জাহানারা বেগম শ্যামা।
বক্তব্য রাখেন, উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) সঞ্চিতা কর্মকার, উপজেলা চেয়ারম্যান যথাক্রমে মো.বদরুদ্দোজা, ছুফিয়ানুল করিম চৌধুরী, লেইছ চৌধুরী, আহমেদ জিলু, এমরান উদ্দিন,উপজেলা উপ-সহকারী প্রকৌশলী ওয়াজিবুর রহমান, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আকরাম হোসেন, কাসিম আলী মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো.আহাদুজ্জামান, উপজেলা ব্যবস্থাপনা ও প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা বাধন কান্তি রায়,মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা সৈয়দ নুরুল হুদা,শিক্ষা অফিসার মো.শফিক উদ্দিন, পরিবার পরিকল্পনা বিষয়ক কর্মকর্তা ডা. শফিকুল আলম, উপজেলা প্রকৌশলী রমাপদ দাস, পল্লী বিদ্যুৎ এর এজিএম মহি উদ্দিন, ফেঞ্চুগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সহ-সম্পাদক তাজুল ইসলাম বাবুল, প্রকৌশলী আজাদ কাজী,কর্মচারী অমিত কুমার,ড্রাইভার মাসুম আহমদ আজাদ, অফিস সহকারী ফিরোজ আলী প্রমুখ

শুরুতে পবিত্র কোরআন তেলাওয়াত করেন জামে মসজিদের ইমাম ফখরুল ইসলাম। সভা শেষে সংবর্ধিত চেয়ারম্যান ও ভাইস- চেয়ারম্যানবৃন্দকে সম্মাননা ক্রেস্ট ও উপহার সামগ্রী প্রদান করা হয়।






Related News

Comments are Closed